LatestsNews
# এডিস মশার দীর্ঘমেয়াদি সমাধানের জন্য বাংলাদেশ সফরে আসছেন উচ্চ পর্যায়ের বিদেশি বিশেষজ্ঞ প্রতিনিধিদল। # শেখ হাসিনাকে ভারত সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। # মেঘনা নদীর ভাঙন গাফিলতি করা সেই প্রকৌশলীকে কী শাস্তি দেওয়া হয়েছে? : প্রধানমন্ত্রী# সংসদ সদস্য না হয়েও বিলাসবহুল গাড়িতে শুল্কমুক্ত সুবিধা পেলেন মুহিত# দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) দুর্নীতির বস্তাভর্তি টাকাসহ হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা গ্রেপ্তার# নায়াখালীতে সিএনজিচালিত ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে নারী-শিশুসহ আহত ১২# পচা মাছ মজুদ ও বিক্রির দায়ে স্বপ্ন এক্সপ্রেস সুপার শপকে জরিমানা# ভারতীয় দলের ওপর হামলার শঙ্কা, পিসিবিকে মেইল# ২০২৩ সালের মধ্যে দেশের ৬৬ হাজার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুপুরের খাবার পাবে প্রাথমিকের শিক্ষার্থীরা# মিন্নির জামিন শুনানি, যা বললেন হাইকোর্ট# ভারতের বহুল আলোচিত ইসলামিক বক্তা ডা. জাকির নায়েক এবার মালয়েশিয়ায় নিষেধাজ্ঞার মুখে# নেত্রীকে মুক্ত করতে ব্যর্থ বিএনপি এখন বিদেশিদের কাছে ধরনা দিচ্ছে মন্তব্য : ওবায়দুল কাদের। # ফিল্মি স্টাইলে মেহেদিকে ছিনিয়ে নেয়ার পরিকল্পনা, গ্রেফতার ৪# মুন্সীগঞ্জে প্রতিদিন শাপলা তুলে লাখ টাকা আয় করে কৃষক শ্রেণীর লোকেরা# ব্যাচেলর খ্যাত সালমান খান অবশেষে বিয়ের জন্য নায়িকা পাত্রী খুঁজে পেয়েছেন# সন্ত্রাসীদের অতর্কিত হামলায় ঠাকুরগাঁও প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আহত # নকশা জালিয়াতির অভিযোগে কাসেম ড্রাইসেলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক তাসভীর-উল-ইসলামকে গ্রেফতার।# ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তুচ্ছ বিষয়কে কেন্দ্র করে নার্স ও স্টাফদের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনা# রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করতে মিয়ানমারকে আহ্বান জানিয়েছে জাতিসংঘ।# হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের মৃত্যুর পর জাতীয় পার্টির বিভক্তি আরো স্পষ্ট হয়ে উঠছে।
আজ বুধবার| ২১ আগস্ট ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

মৃত্যু ফাঁদ রাণীনগর রেলওয়ে ষ্টেশনের ফুটওভার ব্রীজটি



রাণীনগর (নওগাঁ) প্রতিনিধি

নওগাঁর রাণীনগর রেলওয়ে ষ্টেশনের সেই মৃত্যু ফাঁদ নামক ফুটওভার ব্রীজটি সংস্কার কিম্বা পুন:নিমার্ণ না হলেও পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে ঘর মুখি মানুষের ট্রেনের ছাদে ভ্রমণরত যাত্রীদের দূর্ঘটনা এড়াতে রেল কর্তৃপক্ষ মঙ্গলবার সকাল থেকে ব্রীজটি ভেঙ্গে ফেলার কাজ শুরু করেছে। প্রতিটি ঈদ কিম্বা তিথি-পরবে রাজধানী ঢাকা বা অন্য শহর থেকে ছুটিতে ট্রেনের ছাদে ভ্রমনকারী যাত্রীদের এই ফুটওভার ব্রীজের সাথে ধাক্কা লেগে হতাহতের ঘটনা মাঝে মধ্যেই ঘটত। বিষয়টি দৈনিক করতোয়া সহ বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত হলে রেল কর্তৃপক্ষ সচেতনতা মূলক একটি সাইনবোর্ড দিয়ে দায় সাড়ার চেষ্টা করলেও পুন:রায় দূর্ঘটনা এড়াতে ঈদুল আযহা’র আগেই জনস্বার্থে ব্রীজটি ভেঙ্গে ফেলার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। কর্তৃপক্ষ বলছে, ফুটওভার ব্রীজটি নতুন করে নিমার্ণের সম্ভবনা না থাকায় ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে।


জানা গেছে, বাংলাদেশ রেলওয়ে’র নওগাঁর রাণীনগর উপজেলা সদরে অবস্থিত রাণীনগর রেলওয়ে ষ্টেশন সংলগ্ন ফুটওভার ব্রীজটি যাত্রী ও সর্ব সাধারণ ঝুকিমুক্ত রেল লাইন পারাপারের সুবিধার্থে নিমার্ণ করা হয়। ট্রেনের ছাদে ভ্রমণরত যাত্রী ব্রীজটিতে ধাক্কা লেগে মাঝে মধ্যেই হতাহতের ঘটনায় মৃত্যু ফাঁদে পরিনত হয়েছে।

ট্রেন গুলো নির্ধারিত গতিতে নিবিঘেœ চলাচলের জন্য সময়ের প্রয়োজনে রেললাইন মাঝে মধ্যে সংস্কার করায় রেলের পাটাতনের উচ্চতা কিছুটা বৃদ্ধি হলেও ফুটওভার ব্রীজটি আগের মতই থাকার কারণে বাধ্য হয়ে ট্রেনের ছাদে ভ্রমণকারী যাত্রীরা অসাবধানতা বসত প্রায়ই ব্রীজের রেলিং এর সাথে ধাক্কা লেগে গুরুত্বর আহত সহ নিহতের ঘটনা অহরহ ঘটে থাকে। প্রতি বছরই মৃত্যুর সংখ্যা বৃদ্ধি পেলেও রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের নজরদারীর অভাবে ব্রীজের রেলিং এর সাথে ধাক্কা লেগে নিহতদের তালিকা দিনদিন ভারী হচ্ছে। মুসলমানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় দুই উৎসব সহ বিভিন্ন পূজা-পার্বনে রেলের যাত্রী বৃদ্ধি পাওয়ায় এক শ্রেণীর যাত্রীরা অনেকটা বাধ্য হয়েই ট্রেনের ছাদে চরে নির্ধারিত গন্তব্যে যাওয়ার চেষ্টা করে।

দিনাজপুর, সৈয়দপুর, চিলাহাটী, পার্বতীপুর, নিলফামারী, সান্তাহার সহ উত্তর জনপদের বিভিন্ন রেলওয়ে ষ্টেশন থেকে ঈশ্বরদী, যশোর, খুলনা, যমুনা সেতু পাড় হয়ে রাজধানী ঢাকা পর্যন্ত দিন রাতে আন্ত:নগর ও মেইল ট্রেন সহ প্রায় ১১ টি ট্রেন নিয়মিত রাণীনগর রেলওয়ে ষ্টেশন হয়ে চলাচল করে। রেলওয়ের পশ্চিম অঞ্চলে ষ্টেশনের ক্যাটাগরি মোতাবেক অধিকাংশ স্থানে ফুটওভার ব্রীজ আছে। সেই সব ব্রীজের সাথে ধাক্কা লেগে প্রাণহানীর ঘটনা কম-বেশি থাকলেও রাণীনগর রেল ষ্টেশনে স্থাপিত ফুটওভার ব্রীজের রেলিং এর সাথে ধাক্কা খেয়ে ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ করা যাত্রীদের প্রতি মাসেই প্রায় আহত-নিহতর ঘটনা লেগেই আছে। পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে ঘর মুখি মানুষের ট্রেনের ছাদে ভ্রমণরত যাত্রীদের দূর্ঘটনা এড়াতে রেল কর্তৃপক্ষ ব্রীজটি ভেঙ্গে ফেলার কাজ শুরু করেছে।


বগুড়া জেলার আদমদিঘী উপজেলার সান্তাহার রেলওয়ে জংশনে কর্মরত এক কর্মকর্তা জানান, যদিও ট্রেনের ছাদে ভ্রমণ করা বাংলাদেশ রেলওয়ে আইনে দন্ডনীয় অপরাধ। ছাদে ভ্রমণে যাত্রীদের আমরা বারবার নিষেধ করলেও এক শ্রেণীর যাত্রীরা নিষেধ না মানার কারণে রাণীনগরের ওভার ব্রীজের সাথে ধাক্কা খেয়ে প্রাণহানীর মত ঘটনা বেরেই চলেছে। বিট্রিশ আমলে নির্মিত রেলগুলো সময়ের প্রয়োজনে নতুন করে নির্মাণ কিংবা সংস্কার করায় পাটাতনের উচ্চতা কিছুটা বৃদ্ধি হওয়ার ফলে ওভার ব্রীজের রেলিং এর সাথে অসাবধানতা বসত ছাদে ভ্রমণ যাত্রীদের দূর্ঘটনার শিকার হতে হয়। স্বাভাবিক ভাবে প্রতিটি ওভার ব্রীজ প্রায় ১৭ ফিট থেকে সাড়ে ১৭ ফিট উঁচু হয়। কিন্তু রাণীনগরে রেল লাইন থেকে ওভার ব্রীজের উচ্চতা মাপ মোতাবেক ১৫ ফিট ৩ ইঞ্চি এবং ট্রেনের উচ্চতা ১৩ ফিট ৬ ইঞ্চি। তাই ট্রেনের ছাদে যাত্রীরা যখন বাধ্য হয়ে ভ্রমণ করে তখন ওভার ব্রীজের রেলিং এর সাথে ধাক্কা লেগে প্রায়ই মর্মান্তিক দূর্ঘটনা ঘটে। বেশ কিছু দিন আগে রাণীনগর রেল ষ্টেশন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় কর্মরত ষ্টেশন মাষ্টার না থাকায় নজরদারী আরো কমে যাওয়ায় দূর্ঘটনার মাত্রা বেড়েই চলছে।


চলতি বছরের ফেব্রæয়ারী মাসের ২০ তারিখে ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা দিনাজপুর গামী দ্রæতযান আন্ত:নগর ট্রেনের ছাদে ভ্রমণরত যাত্রীদের মধ্যে ৭ জন যাত্রী ওভার ব্রীজের সাথে ধাক্কা লেগে নিচে পড়ে গিয়ে ঘটনাস্থলেই ৪ জন যাত্রী মারা যায় এবং আরো ৩ জন গুরুত্বর আহত হয়। আহতদের মধ্যে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আরো দুই জন যাত্রী রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ঘটনার পরেদিন মারা যায়। রাণীনগরে ৬ জন যাত্রী মারা যাওয়ার পর রেল বিভাগের উর্ধতন কর্তৃপক্ষ ঘটনাস্থল পরিদর্শনে এসে মৃত্যু ফাঁদ এই উড়াল সেতু সংস্কারের আশ্বাস দিলেও প্রায় ৬ মাস পর রেল কর্তৃপক্ষ ওভার ব্রীজ সংস্কার কিম্বা পুন:নিমার্ণ না করে দূর্ঘটনা এড়াতে সম্পূর্ণ ভেঙ্গে ফেলার কাজ শুরু করেছে।


নিরাপদ সড়ক চাই রাণীনগর উপজেলা শাখা’র সভাপতি সাইদুজ্জামান সাগর জানান, একই স্থানে বারবার দূঘটনায় প্রানহানির মতো ঘটনা ঘটলে কর্তৃপক্ষ ব্রীজটি বারবার সংস্কারের আশ্বাস দিলেও দৃশ্যমান কোন অগ্রগতি হয়নি। তবে ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে যাত্রী-সাধারণের র্দূঘটনা এড়াতে অবশেষে ব্রীজটি ভেঙ্গে ফেলার কাজ শুরু করেছে রেল কর্তৃপক্ষ। যা আমাদের কাম্য ছিল না, ব্রীজটি ভেঙ্গে ফেলার কারণে ট্রেন যাত্রী ও রাণীনগর সদরের পশ্চিম ও পূর্ব অঞ্চলের মানুষের চলাচলে চরম দূর্ভোগ পোহাতে হবে।


বাংলাদেশ রেলওয়ে পাকশী বিভাগীয় ব্রীজ প্রকৌশলী মো: মনিরুজ্জামান জানান, পবিত্র ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে ঘর মুখি যাত্রীরা ফুটওভার ব্রীজের সাথে ধাক্কা লেগে হতাহতের ঘটনা যেন আর না ঘটে সেই লক্ষ্যে আপাতত: ব্রীজের উপরের অংশটুকু ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে। ঈদের পর দরপত্রের মাধ্যমে ফুটওভার ব্রীজটি সংস্কারের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


1