LatestsNews
# এবছর শিক্ষা খাতে বাজেটের আকার বাড়লেও তা শতাংশে কমেছে বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।# পায়রা তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে বাংলাদেশি ও চীনা শ্রমিকদের মধ্যে সংঘর্ষে ৮ চীনা শ্রমিক আহত হয়েছেন।# দেশে ফলের উৎপাদন বাড়াতে প্রতিনিয়ত চলছে নানা গবেষণা- কৃষকদের উৎসাহিত করতে যত আয়োজন# মোবাইল ফোনে বাংলায় এসএমএস (মেসেজ) পাঠালে খরচ অর্ধেক ছাড় দেয়া হবে।# বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য হলেন সেলিমা ও টুকু# মানুষের খাদ্য তালিকার প্রাণীর এসব খাবার এ যেন মানুষ মারার কারখানা# রাজধানীর বায়তুল মোকাররম মার্কেটে আগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে।# আমিরাতে প্রথম বাংলাদেশির গোল্ডেন ভিসা অর্জন# 'মোবাইল রিচার্জে শুল্ক বাড়ানোয় ক্ষতিগ্রস্ত হবে ডিজিটাল বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা'# কামারখন্দ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী শহিদুল্লাহ সবুজ নির্বাচিত# লাকসামে স্কুলছাত্রী ধর্ষনের শিকার, ধর্ষনকারী গ্রেপ্তার# দেশে সুষ্ঠু নির্বাচন হওয়া কঠিন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম।# রাজধানীতে বিশৃঙ্খলভাবে দেয়াল লিখন ও গাছে বিজ্ঞাপন লাগালে কঠোর ব্যবস্থা'# পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের শেষ বা পঞ্চম ধাপের ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে এখন চলছে গণনা।# খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়টি নির্ভর করছে আদালতের ওপর।# রাজধানীর কল্যাণপুরের রাজিয়া পেট্রোল পাম্পে আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে।# সালথায় জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহে বিভিন্ন স্কুল কলেজের ছাত্র শিক্ষকদের মাঝে পুরস্কার বিতরন# ঝিনাইদহে মসজিদের মোয়াজ্জিনকে কুপিয়ে ও গলাকেটে হত্যা !# অবশেষে বড় অংকের অর্থের বিনিময়ে মিশরের ইজিপ্ট এয়ার থেকে লিজ নেয়া নষ্ট দুটি উড়োজাহাজ ফেরত দেয়া হচ্ছে।# শুধু সেমির আশা বাঁচিয়ে রাখার জন্যই নয়, দলের আত্মবিশ্বাস ফিরে পাওয়ার জন্য জয়ই দরকার ছিল
আজ বুধবার| ১৯ জুন ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

নিরাপদ সড়ক চাই’ আন্দোলনকারীদের ওপর ভর করে সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে চেয়েছিল বিরোধী পক্ষ



একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে ‘কোটা সংস্কার’ এবং ‘নিরাপদ সড়ক চাই’ আন্দোলনকারীদের ওপর ভর করে সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে চেয়েছিল বিরোধী পক্ষ— এমনটাই মনে করেন আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারকরা। তারা বলছেন, প্রধানমন্ত্রীর গৃহীত পদক্ষেপের ফলে সাময়িক ‘অস্থিতীশীল’ পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠতে সক্ষম হয়েছে সরকার।

কিন্তু আগামী ডিসেম্বর পর্যন্ত সরকারবিরোধী নানামুখী আন্দোলন ও অপপ্রচার চলবে। সে কারণে দেশবাসী যেন গুজবে কান না দেয় এবং সরকারের সাড়ে নয় বছরের উন্নয়নগুলো জনগণের সামনে তুলে ধরতে দলীয় নেতা-কর্মীদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট প্রচারণার নির্দেশ দিয়েছেন দলের হাইকমান্ড। আসছে কোরবানির ঈদের পর এই প্রচারণা জোরদার করা হবে।

এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. আবদুর রাজ্জাক বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, ‘সড়ক পরিবহন খাতে বিশৃঙ্খলা নিয়ে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করে।

কিন্তু আন্দোলনকে রাজনৈতিক হাতিয়ার হিসেবে ভিন্ন খাতে নিতে কিছু সুশীল ও একটি রাজনৈতিক দল অপপ্রচারে লিপ্ত হয়। তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃঢ় মানবিক ও উদার পদক্ষেপের কারণে আমরা পরিস্থিতি শান্তিপূর্ণভাবে সামাল দিয়েছি।’ তিনি বলেন, ‘যাদের পায়ের নিচে মাটি নেই, ভোটের মাঠে গ্রহণযোগ্যতা নেই, তারা আবার এ ধরনের আন্দোলনের ওপর ভর করে সরকারকে অস্থিতিশীল করার চেষ্টা করবে।

কিন্তু আমরা শক্ত হাতে মোকাবিলার পাশাপাশি ভোটের জন্য দলীয় নেতা-কর্মীদের কাজ করতে নির্দেশ দিয়েছি।’ দলীয় সূত্র জানায়, আগস্টকে আওয়ামী লীগ শোকের মাস হিসেবেই পালন করে। সে কারণে শোকের কর্মসূচি ছাড়া অন্য কোনো কর্মসূচি রাখা হয় না। ২২ আগস্ট পবিত্র ঈদুল আজহা। ঈদের পরই সংসদ নির্বাচনের জন্য কোমর বেঁধে মাঠে নামবে আওয়ামী লীগ।

দলের কেন্দ্রীয় নেতারা যাবেন তৃণমূলে। কর্মিসভা, বর্ধিত সভা, বিভাগীয় প্রতিনিধি সভায় যোগ দেবেন তারা। এ ছাড়া কেন্দ্রীয় ১৪ দল বিভাগীয় মহাসমাবেশ করবে বলেও জানা গেছে। বিগত খুলনা, গাজীপুর, রাজশাহী ও বরিশাল সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দলের ঐক্য এবং সরকারের উন্নয়নের কারণে যে সফলতা এসেছে, সেগুলো তুলে ধরা হবে।

এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, ‘ঈদের পর আমরা জেলা পর্যায়ে বর্ধিত সভা করব। যেসব জায়গায় ছোটখাটো বিরোধ রয়েছে, সেগুলো নিরসন করব। বিগত কয়েকটি সিটি নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ ও উন্নয়ন প্রচারে যে সফলতা এসেছে, সেগুলো তুলে ধরব। এ ছাড়া তৃণমূল নেতা-কর্মীদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডেকে যে নির্দেশনা দিয়েছেন সেগুলোর ফলোআপ করব।’

সূত্রমতে, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে দলকে টানা তৃতীয় মেয়াদে ক্ষমতায় আনাই আওয়ামী লীগের জন্য প্রধান চ্যালেঞ্জ বলে মনে করছেন দলের নীতিনির্ধারকরা। সে কারণে উন্নয়ন প্রচারের গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে। দলের নীতিনির্ধারকরা বলছেন, সরকার টানা সাড়ে নয় বছরে যে উন্নয়ন করেছে, তা অতীতের ২৮ বছরেও সম্ভব হয়নি।

জনগণকে এ উন্নয়ন সম্পর্কে জানাতে হবে। এ ছাড়া ২০২১ ও ২০৪১ সালে বাংলাদেশ কেমন হবে, আওয়ামী লীগ সরকারের গৃহীত পদক্ষেপগুলো কী হবে তা জনগণের সামনে তুলে ধরতে পারলেই আগামীতেও নৌকায় ভোট দেবে। এজন্য আওয়ামী লীগের প্রচার-প্রকাশনা সেলের পক্ষ থেকে লিফলেট, উন্নয়নচিত্র দিয়ে হ্যান্ডবুক ও প্রচারপত্র বিলি করা হয়েছে।

আবার সরকারদলীয় এমপিরা নিজ উদ্যোগে সরকারের উন্নয়নগুলো ও তাদের নির্বাচনী এলাকার উন্নয়নগুলো প্রচার করছেন। এ প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, ‘দেশের মানুষ উন্নয়নের সঙ্গেই থাকতে চায়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সরকার সাড়ে নয় বছরে যে উন্নয়ন করেছে, বিগত ২৮ বছরে অন্য সরকার তা করতে পারেনি। আমরা বিগত কয়েকটি সিটি নির্বাচনে উন্নয়ন ও দলীয় ঐক্যের কারণে বিজয় পেয়েছি। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও ঐক্য ও উন্নয়ন প্রচারে গুরুত্ব দেওয়া হবে। এজন্য বেশি প্রয়োজন দলীয় শৃঙ্খলা। যাকেই নৌকা দেওয়া হবে সব ভেদাভেদ ভুলে তার পক্ষে কাজ করতে হবে। কেউ দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গেলে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’


1