LatestsNews
# বাংলাদেশকে উন্নত দেশের কাতারে নিতে সবাইকে সম্মিলিতভাবে কাজ করার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর# আদালতের ভাবমূর্তি ও মর্যাদা ক্ষুণ্ণ হয় সংবাদ প্রকাশের বিষয় স্পষ্ট করলেন সুপ্রিম কোর্ট# তিউনিসিয়া নৌকাডুবির ঘটনায় বেঁচে যাওয়া ১৫ বাংলাদেশি দেশে ফিরেছেন।# বাংলাদেশ পাকিস্তানের কারও ভিসা বন্ধ করেনি বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে মোমেন।# ৭ ঘন্টায় নয়, মাত্র দেড় ঘন্টায় লন্ডন থেকে নিউ ইয়র্ক পৌঁছাবে যে বিশেষ প্লেন!# বিচারাধীন মামলা নিয়ে খবর প্রচারে বিরত থাকতে সুপ্রিম কোর্টে# ঢাকা শহরের কোথাও গণপরিবহনে টিকিট ছাড়া কোনো যাত্রী চলাচল করতে পারবেন না (ডিএসসিসি) # ঈদ উপলক্ষে ধারণক্ষমতার বাইরে নির্দিষ্ট আকারের থেকেও জোড়াতালি দিয়ে বড় করা হচ্ছে পুরনো লঞ্চগুলো।# জরিপের ফলাফলে দেখা গেছে পশ্চিমবঙ্গে মমতার তৃণমূল কংগ্রস নির্বাচনের ফলাফলে শীর্ষে রয়েছে।# ২৮ মে ঈদের বেতন-ভাতা পাবেন সরকারি চাকরিজীবীরা# ‘বালিশ কাণ্ডে’ জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ‘বালিশ বিক্ষোভ’ করেছে গণঐক্য এবং নাগরিক পরিষদ# রূপপুর পারমাণবিক ‘বালিশ কাণ্ডে’ হাইকোর্টে রিট# কৃষকদের কাছ থেকে জেলা প্রশাসককে ধান কেনার নির্দেশ দিয়েছেন # বেগম খালেদা জিয়া জাউ খেয়ে বেঁচে আছেন : রিজভী# আসবাবপত্র কেনা এবং উঠানোয় অনিয়মের বিষয়ে হাইকোর্টে শুনানি শুরু হয়েছে।# নোয়াখালীতে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অবহেলায় নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ স্বজনদের# পলাশবাড়ীতে সংযোগ সড়ক অভাবে নির্মিত স্বপ্নের সেতু ব্যবহার থেকে এলাকাবাসি বঞ্চিত# দারিয়াপুরে মানস নদী মাছের ঘের দখল করে নিয়েছে মৎস্যজীবীরা# বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে রুমায় মঙ্গল শোভাযাত্রা# খেজুর হতে সাবধান - খেজুরে চেতনানাশক মিশিয়ে নতুন ধর্মীয় কৌশলে অজ্ঞানপাটি ।
আজ বুধবার| ২২ মে ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

জন্ম শতবর্ষ উদযাপনে যুক্তরাষ্ট্রের স্ট্যাচু অব লিবার্টির আদলে কক্সবাজারে হবে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি



মুজিববর্ষ উদযাপনে বৃহস্পতিবার মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ে এক সভায় মন্ত্রী এ তথ্য দেন বলে মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

মন্ত্রীকে উদ্ধৃত করে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, “বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ উদযাপনে বছরব্যাপী বর্ণাঢ্য কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হবে। এ লক্ষ্যে সকল মন্ত্রণালয়, সংস্থা এবং দেশের স্বাধীনতার স্বপক্ষের সকল শক্তি ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করবে।

“মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা নিয়ে মুজিববর্ষ উদযাপন করবে। সরকার এ উপলক্ষে স্ট্যাচু অব লিবার্টির আদলে জাতির পিতার প্রতিকৃতি তৈরি করবে।”

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানান, বঙ্গবন্ধুর ওই প্রতিকৃতি তৈরির জন্য আন্তর্জাতিক দরপত্র ডাকা হবে।

কক্সবাজারের মেরিন ড্রাইভের পাশে বঙ্গন্ধুর বিশালাকার ওই প্রতিকৃতি স্থাপনের প্রাথমিক সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানান তারা।

মন্ত্রী মোজাম্মেল বলেন, মুজিববর্ষ উদযাপনের অংশ হিসেবে মিত্র বাহিনী সদস্যদের ৫০০ সন্তানের জন্য বৃত্তির ব্যবস্থা করা হবে। তাদের বাছাই করতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে ভারতীয় হাই কমিশনকে দায়িত্ব দেওয়া হবে।

“পাকিস্তানি শাসক ও শোষকগোষ্ঠীর কবল থেকে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জনে জাতির পিতার ঋণ আমরা কোনো দিন শোধ করতে পারব না। জাতির পিতার জন্ম শতবর্ষ উদযাপন হবে জাতীয় জীবনের এক অনন্য সুন্দর উপলক্ষ।”

এর অংশ হিসেবে এযাবৎকালের ‘সবচেয়ে বড়’ মুক্তিযোদ্ধা সমাবেশের আয়োজন করা হবে জানিয়ে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী বলেন, “বছরব্যাপী মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক জাতীয় দিবসগুলো উদযাপনে জাতির পিতার বর্ণাঢ্য জীবন ও কর্মকে অধিক গুরুত্ব দেওয়া হবে। দেশের বিভিন্ন স্থানে মুজিব মেলার আয়োজন করা হবে।”

মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব এস এম আরিফুর রহমান ছাড়াও মন্ত্রণালয়ের অন্য কর্মকর্তারা সভায় ব্ক্তব্য দেন।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উদযাপনে গত ১৪ ফেব্রুয়ারি প্রধানমন্ত্রীকে সভাপতি করে ১০২ সদস্যের একটি জাতীয় কমিটি এবং জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলামকে সভাপতি করে ৬১ সদস্যের একটি বাস্তবায়ন কমিটি করে সরকার।

এছাড়া জাতির জনকের জন্মশতবর্ষ সুষ্ঠুভাবে উদযাপনে আটটি বিষয়ভিত্তিক উপ-কমিটিও করা হয়েছে।

১৯২০ সালের ১৭ মার্চ গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জন্ম নেন শেখ মুজিবুর রহমান। কালক্রমে তার হাত ধরেই ১৯৭১ সালে বিশ্ব মানচিত্রে নতুন দেশ হিসেবে স্থান করে নেয় বাংলাদেশ।

আসছে ২০২০ সালে বঙ্গবন্ধুর জন্মের শত বছর পূর্ণ হবে। আর ঠিক পরের বছর ২৬ মার্চ বাংলাদেশ উদযাপন করবে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী।

বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষ উদযাপনে ২০২০ ও ২০২১ সালকে ‘মুজিব বর্ষ’ হিসেবে ঘোষণা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গতবছর এক অনুষ্ঠানে বলেন, এ আয়োজনে সকল বয়স ও শ্রেণিপেশার মানুষকে সম্পৃক্ত করা হবে। শিশু, তরুণ, যুবক- সকলের জন্য আলাদা কর্মসূচি থাকবে। আয়োজনের বিস্তৃতি থাকবে দেশের সকল ওয়ার্ড পর্যন্ত।

সেদিন তিনি বলেন, “জাতির পিতা রক্ত দিয়ে ঋণ শোধ করে গেছেন। তার রক্তের ঋণ আমাদের শোধ করতে হবে।”


1