LatestsNews
# টঙ্গীতে পানি বন্দী হাজারো পরিবার# শৈলকুপায় ব্রীজ আছে রাস্তা নেই!# তৃতীয় লিঙ্গ সম্প্রদায়ের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরন।# অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে ২০২০-২১ অর্থবছরের নতুন মুদ্রানীতি ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।# করোনার মধ্যেই বিয়ের পিঁড়িতে বসলেন মেহেদী হাসান# বাংলাদেশের জাতীয় সংসদ ও আশপাশের এলাকা সংস্কার করা হবে লুই কানের নকশাতেই স্পিকার ড. শিরীন শারমিন # সিটি কর্পোরেশনের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীর ঈদ ছুটি বাতিল- মেয়র গাজপুর# সিটি কর্পোরেশনের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীর ঈদ ছুটি বাতিল- মেয়র গাজপুর# সিটি কর্পোরেশনের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীর ঈদ ছুটি বাতিল- মেয়র গাজপুর# সিটি কর্পোরেশনের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীর ঈদ ছুটি বাতিল- মেয়র গাজপুর# গাজীপুরে পোশাক শ্রমিক বিক্ষোভ, মহাসড়ক অবরোধ# নাজিব রাজাকের বিরুদ্ধে আনা দুর্নীতির সব ক’টি অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় ১২ বছর কারাদণ্ড ও ২১০ মিলিয়ন রিংগিত জরিমানা# প্রথম মুসলিম রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দিল ইসরাইল# অবিশ্বাস্য হলেও সত্য যে অর্থবছরের শুরুতে রেমিট্যান্সের অবিশ্বাস্য চমক# লাইসেন্স না থাকা, নিম্নমানের আইসিইউসহ নানান অনিয়মের অভিযোগে উত্তরার আরেক হাসপাতাল বন্ধ# শৈলকুপায় সংস্কারের নামে রাস্তা কেটে দফারফা ৪০ গ্রামের মানুষের যাতায়াত বন্ধ# ইসরাফিল আলমের মৃত্যুতে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রীর শোক# সড়ক মহাসড়কে পশুর হাট বসানো ও তিন চাকার যান চলাচল বন্ধের নির্দেশনা সেতু মন্ত্রীর# গাজীপুরে র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুইজন নিহত# গাজীপুরের কালিয়াকৈরে চলতি মাসের বেতন ও ঈদের ছুটি বৃদ্ধির দাবীতে শ্রমিক অসন্তোষ মহাসড়ক অবরোধ
আজ শুক্রবার| ০৭ আগস্ট ২০২০
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

‘পদ্মার চরাঞ্চল থেকে লোকজন সরিয়ে নিতে বলা হয়েছে’



উজানের ঢলে পদ্মায় হঠাৎ পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় রাজশাহী ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের নিম্নাঞ্চল তলিয়ে গেছে। এ অবস্থায় রাজশাহীর পদ্মার চরাঞ্চল থেকে লোকজন সরিয়ে নিতে জেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয় থেকে জেলা প্রশাসকদের এ নির্দেশনা দেয়া হয় বলে এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ও রাজশাহী-৬ আসনের সংসদ সদস্য শাহরিয়ার আলম।

সোমবার (৩০ সেপ্টেম্বর) রাত ৮টা ৪৫ মিনিটে নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে দেয়া ওই পোস্টে প্রতিমন্ত্রী জানান, রাজশাহীর জেলা প্রশাসককে নির্দেশনা দিয়েছি বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হলে (প্রয়োজন হলে) গোদাগাড়ী ও পবাসহ সব চরাঞ্চলের লোকজন সরিয়ে মূল ভূখণ্ডে নিয়ে আসার জন্য।

ভারতের উত্তর প্রদেশ ও বিহারে রেকর্ড পরিমাণ বৃষ্টিতে ব্যাপক পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রবল বর্ষণে প্লাবনের সৃষ্টি হওয়ায় ফারাক্কা বাঁধের ১০৯টি লকগেট খুলে দিয়েছে ভারত সরকার। যার ফলে বাংলাদেশে বন্যার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।

রাজশাহী পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষ ফারাক্কা বাঁধের গেটগুলো খুলে দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে।

জানা গেছে, টানা বৃষ্টিতে গঙ্গা ছাড়াও পশ্চিমবঙ্গের মালদা জেলায় প্রায় সব নদীতে পানি বাড়ছে। এতে ইংরেজ বাজার শহরের একাধিক এলাকা পানির তলিয়ে গেছে। ইংরেজ বাজার পুরসভার ২৯টি ওয়ার্ডের মধ্যে ২১টিই পানির নিচে। পুরাতন মালদা পৌরসভার ২০টি ওয়ার্ডের ৯টি ডুবে গেছে। জেলায় একাধিক জায়গায় নদীবাঁধ ভেঙে প্লাবিত হয়েছে বিস্তীর্ণ এলাকা। চরম বিপদসীমার ওপর দিয়ে বইছে গঙ্গা ও ফুলহর নদীর পানি। ফলে নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী স্ট্যাটাসে আরও লিখেছেন, ঢাকায় কথা বলে প্রথম দফায় কিছু ত্রাণ বিতরণ করা হয়েছে। একটু আগে ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে বিস্তারিত কথা হয়েছে। আমি রাজশাহীর জেলা প্রশাসককে নির্দেশনা দিয়েছি গোদাগাড়ী ও পবাসহ সব চরাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হলে (প্রয়োজন হলে) মানুষ সরিয়ে মূল ভূখণ্ডে নিয়ে আসার জন্য। এর জন্য প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি রাখতে বলা হয়েছে। মন্ত্রণালয় থেকে দ্রুত বাড়তি বরাদ্দ দেয়া হচ্ছে। স্থানীয় উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা এবং স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা সমন্বয়ের মাধ্যমে কাজগুলো করবেন।


এদিকে রাজশাহী শহর রক্ষা বাঁধ নিয়ে পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী (চলতি দায়িত্ব চাঁপাইনবাগঞ্জ) সৈয়দ সাহিদুল আলম জানান, এভাবে পানি বাড়লে দুই-তিন দিনের মধ্যে বিপাদসীমা অতিক্রম করার আশঙ্কা রয়েছে। তবে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। বাঁধের কোনো জায়গা সমস্যা হলে পর্যাপ্ত প্রস্তুতি রাখা হয়েছে।


1