LatestsNews
# পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অনিয়ম ,রাষ্ট্রদূত সামিনার বিরুদ্ধে অভিযোগের পাহাড়, ক্ষমতার উৎস কী?# ধর্ষণ মামলার বিচার ৬ মাসের মধ্যে শেষ করতে বিচারকদের নির্দেশ দিয়েছেন উচ্চ আদালত।# নৌ-পথে বাংলাদেশ-ভারত-ভুটান ট্রেডের নবযাত্রা# স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী, গতকাল পর্যন্ত রাজধানীতে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন পাঁচ জন।# ঢামেকে প্রথমবারের মতো অ্যালোজেনিক বোনম্যারো ট্রান্সপ্ল্যান্ট# গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার ও মানুষের অধিকার রক্ষায় ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের বিকল্প নেই : মির্জা ফখরুল # সব ধরনের সমুদ্র সম্পদ অর্থনীতিতে কাজে লাগানোর পরামর্শ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা# ঝিনাইদহ থেকে চীনে রপ্তানি হচ্ছে গরুর ভুঁড়ি ও কুঁচে# হাতিয়ায় জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ পালিত# খানজাহান আলী থানা নিসচা’র মতবিনিময় সভা# বন্যা পরিস্থিতির আরও অবনতি ॥ নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত গাইবান্ধায় ট্রেন চলাচল বন্ধ ॥# মৌলভীবাজারে ক্ষতিগ্রস্থ প্রত্যেক ঘর পাকা করে দেওয়া হবে: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী# কুড়িগ্রামে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি ব্রহ্মপূত্রের ভাঙনে রৌমারী-রাজিবপুর প্লাবিত# শিক্ষা সহায়ক স্বপ্নপূরন সংগঠনের উদ্যোগে দরিদ্র দুই শিক্ষার্থীকে সহায়তা প্রদান # শৈলকুপায় কৃকদের নিকট থেকে ধান কিনছেন ইউএনও# ঝিনাইদহ জেলা জুড়েই পোষ্ট অফিসের কর্মচারী কর্মকর্তাদের চলছে বেহালদশা# খুলনার শিরোমণি বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতাল অচলাবস্থা রোগী ও তাদের স্বজনদের চরম ভোগান্তি# ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় আমবোঝাই ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা নিহত ২# ভারতের গুজরাটে ১৮ বছরের নিচে মোবাইল নিষিদ্ধ# একই পাঞ্জাবির দামে হেরফেরের দায়ে আড়ংয়ে আবারও পাঞ্জাবি কাণ্ড, ফের জরিমানা
আজ শুক্রবার| ১৯ জুলাই ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

বঙ্গবন্ধু সাফারী পার্কে জিরাফ নতুন শাবক জন্মানোর ফলে পার্কের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে খুশীর আমেজ



টি.আই সানি,গাজীপুর Channel 4TV :
গাজীপুরের শ্রীপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে দুইটি জিরাফের মৃত্যু শোক কাটতে না কাটতেই গত মঙ্গলবার সকালে জিরাফ পরিবারে নতুন অতিথির জন্ম নিল। তবে বাচ্চাটি পুরুষ না মাদি তা এখনো নিশ্চিত করতে পারেনি পার্ক কর্তৃপক্ষ। ঈদের আগে পার্কে জিরাফের নতুন এ সদস্য জন্মানোর ফলে পার্কের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে খুশীর আমেজ লক্ষ্য করা গেছে। বর্তমানে পার্কে জিরাফের সংখ্যা হলো নয়টি। 

সাফারী পার্কের বন্য প্রাণী পরিদর্শক মো. আনিসুর রহমান বলেন, জন্ম নেয়া শাবক ও তার মায়ের সুস্থতায় বিবেচনায় জিরাফ বেষ্টনী এলাকায় একজন ভেটেরিনারি চিকিৎসকের অধীনে সার্বক্ষণিক পরিচর্যায় নজরদারি বৃদ্ধি করা হয়েছে। তাদের স্বাভাবিক খাবার গাজর, ছোলা, কলা, সবুজ ঘাস ও গমের ভূসি ছাড়াও বিভিন্ন ধরনের ভিটামিন দেয়া হচ্ছে। বাচ্চা জিরাফটি দিনভর তার মায়ের সাথে জিরাফ বেষ্টনীতে ঘুরে বেড়াচ্ছে। শাবকের সঙ্গে মায়ের সখ্যতা দেখে বেজায় খুশি পার্কের কর্মকর্তারা।

পার্কে কর্মরত ওয়াইল্ড লাইফ সুপারভাইজার মো.সরোয়ার হোসেন জানান, ২০১৩ সালে ও ২০১৫সাল পর্যন্ত সাফারিপার্কে চার দফায় দক্ষিণ অফ্রিকা থেকে ১২টি জিরাফ আনা হয়। কিন্তু ২০১৬সালের মাঝামাঝি সময়ে দুইটি এবং ২০১৭সালের ১৭মে দুইটিসহ মোট চারটি জিরাফ অসুস্থ হয়ে মারা যায়। বর্তমানে শাবক জিরাফটি ছাড়া পার্কে তিনটি পুরুষ এবং পাঁচটি মাদি জিরাফ রয়েছে। নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে বেষ্টনীতে প্রবেশ না করায় বাচ্চাটি পুরুষ না মাদি তা নির্ধারণ করা সম্ভব হয়নি।

প্রসবের পর থেকে বাচ্চাকে নিয়ে মা জিরাফ বেষ্টনীতে অন্যদের থেকে আলাদা হয়ে চলাফেরা করছে। মা ও শিশু জিরাফটি সুস্থ রয়েছে। বাচ্চাটি কিছুক্ষণ পর পর মায়ের দুধ পান করছে। খেলা করছে। সপ্তাহ খানেক পর জিরাফের বাচ্চাটি মায়ের দুধের পাশাপাশি অন্য খাবার খেতে শুরু করে। ৩-৫বছর বয়সে জিরাফ পূর্ণতাপ্রাপ্ত এবং প্রজননক্ষম হয়। ১৪-১৫মাস গর্ভকালীণ সময়ের পর সাধারণত একটি মা জিরাফ একটি বাচ্চা প্রসব করে। প্রতিটি জিরাফের গড় আয়ু প্রাকৃতিক পরিবেশে ২০-২৫বছর এবং বেষ্টনীযুক্ত পরিবেশে প্রায় ২৮বছর। পূর্ণবয়স্ক জিরাফের গড় ওজন ১৬শ থেকে ২৪’শ পাউন্ড এবং বাচ্চা জিরাফের গড় ওজন হয় ১০০-১১৫পাউন্ড। পূর্ণ বয়স্ক জিরাফের উচ্চতা ১৯ফুট এবং তাদের জিহ্বার দৈর্ঘ্য আরো দুই ফুট। এরা উঁচুতে থাকা গাছের পাতা বা তৃণ লম্বা জিহ্বা ব্যবহার করে মুখে টেনে নিয়ে খায়। সাধরণ এরা পানি কম পান করে। পানি পান করার সময় সামনের পা দুটি ছড়িয়ে দিয়ে মাথা নিচু করে পানি পান করে থাকে।

জিরাফ সাধারণত দলবদ্ধ হয়ে বসবাস করতে পছন্দ করে। তবে মজার বিষয় হলো প্রজনন সময়ে একাধিক পুরুষ জিরাফ কোন মাদি জিরাফের সাথে মিলিত হতে গলে পুরুষ জিরাফরা যুদ্ধে লিপ্ত হয়। পরে বিজয়ী পুরুষ জিরাফই  মাদি জিরাফের মিলিত হওয়ার সম্মতি পায়। একটি মাদি জিরাফ ১৫-২০বছর পর্যন্ত বাচ্চা প্রসবের ক্ষমতা থাকে।

সাফারি পার্কের প্রকল্প পরিচালক মো. সামসুল আজম জানান, জিরাফ শাবকের কোন নাম আমরা রাখিনি। সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে আলোচনা করে পরে নাম রাখা হবে।


1