LatestsNews
# মৌলভীবাজারে ক্ষতিগ্রস্থ প্রত্যেক ঘর পাকা করে দেওয়া হবে: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী# কুড়িগ্রামে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি ব্রহ্মপূত্রের ভাঙনে রৌমারী-রাজিবপুর প্লাবিত# শিক্ষা সহায়ক স্বপ্নপূরন সংগঠনের উদ্যোগে দরিদ্র দুই শিক্ষার্থীকে সহায়তা প্রদান # শৈলকুপায় কৃকদের নিকট থেকে ধান কিনছেন ইউএনও# ঝিনাইদহ জেলা জুড়েই পোষ্ট অফিসের কর্মচারী কর্মকর্তাদের চলছে বেহালদশা# খুলনার শিরোমণি বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতাল অচলাবস্থা রোগী ও তাদের স্বজনদের চরম ভোগান্তি# ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় আমবোঝাই ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা নিহত ২# ভারতের গুজরাটে ১৮ বছরের নিচে মোবাইল নিষিদ্ধ# একই পাঞ্জাবির দামে হেরফেরের দায়ে আড়ংয়ে আবারও পাঞ্জাবি কাণ্ড, ফের জরিমানা# যুক্তরাষ্ট্র থেকে এক বাংলাদেশি অভিবাসন ইস্যুতে বহিষ্কার।# রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশকে গঠনমূলক সহায়তার আশ্বাস দিয়েছে চীন।# রোহিঙ্গা সংকটের জন্য মিয়ানমার সরকারই দায়ী বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার।# নরসিংদীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ১৩ দিন লড়াই করে হার মানলেন দগ্ধ ফুলন# নোয়াখালীতে ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড # ঝিনাইদহে প্রভাবশালীরা ঘের ও পুকুর কেটে চলেছেন, অবৈধ পুকুর খননে কৃষকরা হচ্ছে ক্ষতিগ্রস্ত# লোহাগড়ায় ৫’শ পিস ইয়াবাসহ মাদক কারবারী আটক# বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতালের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মাহমুদুলকে যোগদানে দিনভর উত্তেজনা # শিরোমনি উত্তরপাড়ায় খেলতে গিয়ে পুকুরে ডুবে দুই শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যুঃ এলাকায় শোকের ছায়া# নোয়াখালীর চৌমুহনীতে আধিপত্য বিস্তারের জেরে প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবকের মৃত্যু# কুড়িগ্রামে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় ৬জন গ্রেপ্তার
আজ বুধবার| ১৭ জুলাই ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

অসময়ে দূদিনের অবিরাম বৃষ্টিতেই জয়পুরহাটের জনজীবন বিপর্যস্ত-ধানের জমি পানির নিচে-কৃষকের মাথায় হাত।



মো:নাহিদ আখতার:জেলা ব্যুারো প্রধান:জয়পুরহাট:- গত বৃহস্পতিবার রাত থেকে আজ শনিবার-দূদিনের অসময়ে অবিরাম বৃষ্টিতে জয়পুরহাট শহরের জনজীবন যেমন বিপর্যস্থ-রাস্তাঘাটে অস্থায়ী ভাবে পানি জমা,অফিস-আদালত,স্কুল-কলেজগামী  সহ সাধারন শ্রমিক ও দিনমজুররা পড়েছে বিপদে তেমনি জয়পুরহাট শহর ও গ্রামের কৃষকদের অবিরাম বৃষ্টি ও দমকা বাতাসের কারনে আমনের জমি পানিতে ডুবে ও ধানের গাছ পড়ে যাওয়ায় কৃষকদের মাথায় হাত।

 

আজ ২১ অক্টোবর (শনিবার):জয়পুরহাট শহরের প্রধান সড়ক, পাঁচবিবি সড়ক, জামালগন্জ সড়ক, বদর উদ্দিন সড়ক, বঙ্গবন্ধু সড়ক, হাজ্বী মাদ্রাসা সড়ক সহ এসব এলাকায়  স্থায়ী-অস্থায়ী ভাবে বসবাসকারী বাসিন্দা,চাকুরিজীবি,ছাত্র-ছাত্রী ও সাধারন শ্রমিকদের অভিমত সহ জয়পুরহাট জেলার কালাই উপজেলা ও আক্কেলপুর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় সরেজমিনে গ্রামের অবস্থা ও ধানের জমির দূদিনের অবিরাম বৃষ্টি ও দমকা বাতাসে বর্তমান অবস্থা দেখেই বুঝা যায় গ্রামে বসবাসকারী কৃষকদের দূর্দশার চিত্র।

 

গত দূদিনের অবিরাম বৃষ্টিতে জয়পুরহাট শহরের প্রধান সড়কে অস্থায়ীভাবে পানি জমে যাওয়ার কারনে  স্কুল-কলেজ গামী ছাত্র-ছাত্রীরা পড়ছে সমস্যায়,যানবাহন চলাচল ব্যাহত হচ্ছে সাথে অবিরাম বৃষ্টির কারনে ক্রেতা না থাকায় অনেক দোকান বন্ধ রেখেছে অনেক দোকানী।

 

এদিকে জামালগন্জ সড়ক, বঙ্গবন্ধু,বদর উদ্দিন, হাজ্বী মাদ্রাসা সড়ক সহ জয়পুরহাট পৌর এলাকার প্রায় সড়কে অস্থায়ী ভাবে পানি জমার কারনে এসব এলাকার ছাত্র-ছাত্রী, চাকুরিজীবি সহ বাসিন্দারা পড়েছে চরম বিপদে, তার উপর সড়কে পানি জমে থাকার কারনে যানবাহন বিশেষ করে রিক্সা চলাচল ব্যাহত হওয়ার কারনে রিক্সাও তেমন চলছে না বলে জানালেন বঙ্গবন্ধু সড়কে বসবাস কারী মাহাবুব আলম, পরিচালক,মৌনবীনা, জয়পুরহাট,ফলে কাপড় ভিজিয়ে জুতা হাতে নিয়ে যেতে হচ্ছে অফিস-আদালতে সাথে ছাত্র-ছাত্রীরাও রিক্সা কম থাকায় অনেকেই বৃষ্টির পানিতে ভিজে স্কুল-কলেজে যেতে বাধ্য হচ্ছে যা বির্বতকর। তিনি আরো জানান অবিরাম বৃষ্টির কারনে নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য যেমন-শাক-সবজ্বী,চাল,ডাল, লবন, তেলের মূল্যও বৃদ্ধি পেয়েছে।

 

জয়পুরহাট কুলি শ্রমিক, রিক্সা শ্রমিক, দিনমজুর সহ প্রায় সব ধরনের শ্রমিকরা অবিরাম বৃষ্টির কারনে কাজ না থাকায় অলস দিন কাটাচ্ছে বলে জানালেন শহর কুলি শ্রমিক ইউনিয়নের সেলিম হোসেন। ফলে অনেক শ্রমিকের পরিবারে একবেলা না খেয়ে থাকার কথাও জানালেন জেলা খাদ্যগুদাম শ্রমিক ইউনিয়নের নেতা বাচ্চু সরদার।

 

এদিকে অবিরাম বৃষ্টি সাথে দমকা বাতাসের কারনে জয়পুরহাট শহর সহ আক্কেলপুর ও কালাই উপজেলার প্রায় ৮০% আমন ধানের জমির ধানগাছ বাতাসে পড়ে গিয়ে ও পানিতে তলিয়ে গিয়ে ব্যাপক ক্ষতির মূখে পড়েছে এসব এলাকার কৃষকগন।
কালাই উপজেলার মোসলেমগন্জ এলাকার কৃষক আব্দুর রহীম জানান-মাত্র গত ২/৩ মাস আগেই ঢলের পানি ও বন্যার কারনে তার ১৩ বিঘা জমির বোরো ও বিআর-২৮ ধান নষ্ট হয়ে গিয়েছিল, এ বার সুূদের উপর টাকা নিয়ে তিনি ১৩ বিঘা জমিতে আমন ধান লাগিয়েছিলেন যার প্রায় ৮ বিঘার ধানগাছ গত দূদিনের অবিরাম বৃষ্টি ও বাতাসের কারনে নষ্ট হয়ে গেছে।

 

এদিকে আক্কেলপুর উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে ধানের জমির বেশীর ভাগই পানির নিচে তলিয়ে গেছে। অনেক জমির ধানগাছ বাতাসের কারনে পড়ে গেছে। এতে এসব এলাকার কৃষকগন চরম বিপদে পড়েছেন বলে জানান-আক্কেলপুর নিচা বাজারের কৃষক জমির উদ্দিন।

 

এ ব্যপারে জয়পুরহাট জেলা কৃষি অফিসে যোগাযোগ করলে অফিস সুত্রে জানা যায় গত দূদিনের অবিরাম বৃষ্টির কারনে জয়পুরহাট জেলার কত হেক্টর জমির ধানগাছ নষ্ট হয়েছে তা অফিস বন্ধ থাকার কারনে এই মূর্হুতে সঠিক তথ্য দেওয়া যাচ্ছে না।

জয়পুরহাট বাসী ও কৃষকগনের মতে এ রকম অবিরাম বৃষ্টি যদি আর একদিন স্থায়ী হয় তাহলে ডুবে থাকা ধানগাছ সব নষ্ট হয়ে যাওয়ার সমভ্ব্যবনা আ


1