LatestsNews
# খুলনার শিরোমণি বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতাল অচলাবস্থা রোগী ও তাদের স্বজনদের চরম ভোগান্তি# ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় আমবোঝাই ট্রাক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা নিহত ২# ভারতের গুজরাটে ১৮ বছরের নিচে মোবাইল নিষিদ্ধ# একই পাঞ্জাবির দামে হেরফেরের দায়ে আড়ংয়ে আবারও পাঞ্জাবি কাণ্ড, ফের জরিমানা# যুক্তরাষ্ট্র থেকে এক বাংলাদেশি অভিবাসন ইস্যুতে বহিষ্কার।# রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বাংলাদেশকে গঠনমূলক সহায়তার আশ্বাস দিয়েছে চীন।# রোহিঙ্গা সংকটের জন্য মিয়ানমার সরকারই দায়ী বলে মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলার।# নরসিংদীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ১৩ দিন লড়াই করে হার মানলেন দগ্ধ ফুলন# নোয়াখালীতে ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড # ঝিনাইদহে প্রভাবশালীরা ঘের ও পুকুর কেটে চলেছেন, অবৈধ পুকুর খননে কৃষকরা হচ্ছে ক্ষতিগ্রস্ত# লোহাগড়ায় ৫’শ পিস ইয়াবাসহ মাদক কারবারী আটক# বিএনএসবি চক্ষু হাসপাতালের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মাহমুদুলকে যোগদানে দিনভর উত্তেজনা # শিরোমনি উত্তরপাড়ায় খেলতে গিয়ে পুকুরে ডুবে দুই শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যুঃ এলাকায় শোকের ছায়া# নোয়াখালীর চৌমুহনীতে আধিপত্য বিস্তারের জেরে প্রতিপক্ষ সন্ত্রাসীদের গুলিতে যুবকের মৃত্যু# কুড়িগ্রামে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষায় ৬জন গ্রেপ্তার# গাজীরহাট ইউনিয়ন পরিষদের গ্রাম আদালত সাধারণ মানুষের কাছে জনপ্রিয় # শিরোমণি স্পোর্টিং ক্লাব আয়োজিত ৮দলীয় মিনি ফুটবল টুর্ণামেন্টের উদ্বোধন# শৈলকুপায় অর্ধশত বছরেও আলোর মুখ দেখেনি স্বতন্ত্র এবতেদায়ী মাদরাসা!# কালীগঞ্জে পিতা হত্যার দায়ে পুত্রের যাবজ্জীবন কারাদন্ড# ‘আমলাতান্ত্রিক জটিলতায় শিল্প মন্ত্রণালয়ের কাজে মন্থর গতি’
আজ বুধবার| ১৭ জুলাই ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

নারায়ণগঞ্জে হারবাল চিকিৎসার নামে চলছে প্রতারনা,ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে সাধারণ মানুষ



বিশেষ প্রতিবেদক,মু.নজরুল ইসলাম।

নারায়ণগঞ্জে হারবাল চিকিৎসার নামে চলছে প্রতারনা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে সাধারণ খেটেখাওয়া সহজ সরল মানুষ। স্থান ডিবি অফিস সংলগ্ন খানপুর নারায়ণগঞ্জ, ব্যবসার কাচামাল অসহায় জনগন, প্রতিষ্ঠানের নাম, বাংলাদেশ ইউনানী এন্ড আয়ুর্বেদিক ফার্মেসী (সাবেক ভারত হারবাল) ব্যবসা চলবে পক্ষে প্রশাসন।নারায়ণগঞ্জে হারবাল চিকিৎসার নামে চলছে নানা প্রতারণা প্রশাসন নিরব। দীর্ঘ দীন যাবৎ নামে-বেনামে শহরের আনাচে কানাচে বিভিন্ন স্থানে গড়ে উঠেছে প্রায় অর্ধশতাধিক হারবাল চিকিৎসা কেন্দ্র। আর এই নারায়ণগঞ্জে রয়েছে বিভিন্ন ধরনের কলকারখানা। এইসব কলকারখানাকে কেন্দ্র করে কয়েক লাখ মানুষের বসবাস এই শহরটিতে। সহজ সরল মানুষকে বোকা বানাতে নারায়ণগঞ্জের স্বঘোষিত বিখ্যাত ইউনানী বা হারবাল প্রতিষ্ঠানগুলো টেলিভিশনে প্রচার করছে দৃষ্টি নন্দন বিজ্ঞাপন। দুঃখজনক হলেও সত্য নারায়ণগঞ্জের বেশ কয়েকটি হারবাল প্রতিষ্ঠানের নেই কোন প্রাতিষ্ঠানিক সনদ। বেশ কিছু অখ্যাত সংগঠন থেকে নাম মাত্র একটি সার্টিফিকেট  এনে খুলে বসেছেন হারবাল মেডিক্যাল নামের প্রতিষ্ঠান। এ সমস্ত প্রতিষ্ঠান থেকে সাধারণ মানুষ প্রতারণার শিকার হচ্ছে। যারা প্রতারিত হচ্ছেন তারা লোক লজ্জার ভয়ে কোনো প্রতিবাদ করতে পারছে না। আবার অনেকে ঔষধের পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ায় ভুগলে ও কাউকে কিছু বলতে পারছেনা। এসব চিকিৎসা কেন্দ্রে যৌনরোগ,পুরুষের শারিরিক দূর্বলতা, বিশেষ ধরনের মলম, মোটা হওয়ার ঔষধ, প্রশ্রাবের জ্বালা পোড়া,গনোরিয়া,ডায়াবেটিস,বন্ধাত্

ব,নাকের পলিপাস, কান দিয়ে পুঁজ পড়া, এইচবিএস+,পাইলস, অ্যাজমা, গ্যাস্ট্রিক ও ক্যান্সারসহ অনেক জটিল ও কঠিন রোগের চিকিৎসার কথা বলে প্রতারনা করা হচ্ছে বলে অভিযোগ সাধারণ মানুষের। নারায়ণগঞ্জ শহরে যারা চিকিৎসা করছেন তাদের অনেকেরই শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে রয়েছে জনমনে নানা প্রশ্ন।  তাহলে কিভাবে করছে তারা মূল্যবান মানব দেহের চিকিৎসা ! এ ব্যাপারে অনুসন্ধানে গত ২৯ অক্টবর ২০১৭ইং তারিখে সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় নারায়ণগঞ্জের প্রানকেন্দ্র খানপুর নিউ মেট্রো সিনেমা হলের দক্ষিণ পার্শ্বে বাংলাদেশ ইউনানী এন্ড আয়ুুর্বেদিক ফার্মেসী (সাবেক ভারত হারবাল)। ভারত হারবালে গিয়ে দেখা গেলো দামি চেয়ার টেবিল হাকিয়ে একজন বসে আছেন। চিকিৎসক চেম্বারে আছেন কি না জানতে চাইলে? বলেন,স্যার ভিতরে রুগী দেখছেন ব্যাস্ত আছেন আপনারা ডাক্তার দেখাতে চাইলে  আগে টিকিট নিতে হবে ফি তিনশত টাকা, ঢাকা থেকে বড় স্যার এসেছেন স্থায়ী সমাধান দিবে ইনশাআল্লাহ। সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে ভিতরের রুমে গিয়ে দেখা মিলে ঢাকা থেকে আগত ডাঃ মোঃ জাকির হোসেনের সাথে, প্রশ্ন করা হয়-আপনি কি ডাক্তার ঢাকা থেকে এসেছেন? ডাঃ জাকির হোসেন উত্তরে বলেন না আমি ডাক্তার নয় আমি পড়ালেখা করি মামার বাড়িতে বেড়াতে এসেছি, আপনি কেন চিকিৎসা দিচ্ছেন আপনি তো ডাক্তার না? উত্তরে জাকির সাহেব বলেন আমার মামা আজ আমাকে চালিয়ে নিতে বলেছেন, বসে থাকা একজন রুগীকে প্রশ্ন করা হয় আপনি এখানে কেনো এসেছেন?আপনার কি সমস্যা-রুগী বলে আমার সমস্যার কথা আমি ডাক্তারকে বলেছি, ডাক্তার আপনাকে কি ঔষধ দিয়েছে, আজ কোনো ঔষধ দেয়নি আগামি ৩১/১০/১৭ ইংরেজী তারিখে আমাকে আফ্রিকান হরিণের কস্তূরী মৃগনাভী দিয়ে ঔষধ বানিয়ে দিবে। আপনার কাছে কত টাকা চেয়েছে?উত্তরে রুগী বলেন, ঔষধের দাম ১১৭৫০ /= টাকা আর এক তোলা কস্তূরীর দাম ১৪৫০০/=টাকা মোট ২৬২৫০/=টাকা দিতে হবে। আজ আপনি কত টাকা দিয়েছেন? ২০,০০০/=টাকা, আর বাকি টাকা কখন দিতে হবে? আমি যখন ঔষধ নিতে আসবো তখন, সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ডাক্তার জাকির হোসেন বলেন ওনার সাথে আমার কোন টাকা পয়শার কথা হয়নাই,আমি ওনার কাছে কোন টাকা পয়শা চাইনাই,আমি শুধু ওনাকে টেষ্ট করেছি, রুগী তখন খুব রাগান্বিত কন্ঠে ডাক্তারকে বললেন,আপনি আমার কাছ থেকে টাকা পয়শা নেওয়ার পর এখন বলছেন টাকা পয়শার কথা বলেননাই,আমি আপনাকে ২০,০০০/=টাকা দিয়েছি। আপনি আমার সাথে প্রতারণা করেছেন বলে ভুক্তভোগী নিরুপায় হয়ে বলেন আমি আপনার বিরুদ্ধে মামলা করবো। তখন ডাক্তার জাকির সাহেবের ফোনটা বেজে ওঠে আর জাকির সাহেবের গলার সুরটা বদলে যায়,সাংবাদিকদের লক্ষ করে ডাক্তার জাকির বলেন আমার মামার ফোন-কথা বলেন,ফোনটা ধরে নাম জানতে চাইলে প্রথমেই বলে আপনারা কেন আমার দোকানে এসেছেন,আপনারা কি ম্যাজিস্ট্রেট এর অনুমতি নিয়ে এসেছেন,আপনি জানেন আমার মামা এন টিভির সাংবাদিক, ব্যবসা করছি ভালভাবে ব্যবসা করতে দিন,আমাদের ডিস্টাব করতে আসবেন না। আপনারা সাংবাদিক আমার বীরুদ্ধে লিখেও কোন লাভ নেই,এরকম অনিয়ম সবাই করে,আমরাও করছি,এবিষয় ড্রাগসুপারও জানে, ওনাকে বলেও কোন লাভ হবেনা,আমি আগামীকাল আসবো,কোন রকম বারাবারি না করে আপনারা আগামীকাল আসেন। প্রিয় পাঠক আগেই বলেনেয়া ভালোছিলো,ভারত হারবালের অনিয়মের বিষয় অনুসন্ধানে যাবার আগেই ড্রাগসুপার মোঃফখরুল ইসলামকে জানানো হয়েছিলো, ড্রাগসুপার আশ্বাসও দিয়েছিলেন প্রশাসনিক সহায়তা করবেন,এবং এও বলেছিলেন,ঘটনাস্থলে অনিয়মের প্রমান পাইলে জানাবেন আমি প্রশাসন নিয়ে আসবো। অনুসন্ধান শেষে ভারত হারবালের অনিয়মের বিষয়ে জানাতে একাধিক বার ফোন করলে ফোন রিসিভ করেননি  ড্রাগসুপার মোঃ ফখরুল ইসলাম। জাকির হোসেন মিথ্যা বলে এরিয়ে যাবার চেষ্টা করলেও আসপাশের একাধীক ব্যাবসায়ীরা জানিয়েছেন,জাকির সাহেব দীর্ঘদিন যাবৎ ডাক্তারের দায়িত্ব পালন করে আসছেন।  এঘটনার বিষয়ে আরো জানতে চোখ রাখুন আগামী দিনের পত্রিকায় অনুসন্ধান চলছে


1