LatestsNews
# গুলশান-১ এর ডিএনসিসি মার্কেটে মেয়াদোত্তীর্ণ শিশু খাদ্য # এডিসের লার্ভা ধ্বংসে বাড়ি বাড়ি অভিযানে নগরবাসীর অসহযোগিতার অভিযোগ# চামড়া নিয়ে টানাপোড়েন থামছেই না - নিয়মিত ক্রেতাদের তৎপরতা দেখা যায়নি। # কাশ্মীর ইস্যুতে মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে বিবৃতি প্রকাশ# দাবি-দাওয়া মানলেই মিয়ানমারে ফিরবে রোহিঙ্গারা# ম্যাজিস্ট্রেট ও পুলিশ কর্মকর্তাদের সঙ্গে বিচারকের কক্ষে বিরিয়ানি খান রাজসাক্ষী জজ মিয়া# গাইবান্ধার ঝিনুকের তৈরী চুন উৎপাদনকারি যুগি পরিবারগুলো এখন বিপাকে# শিক্ষা নীতিমালা অনুমোদন করায় মোবারক হোসেন প্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের অভিনন্দন# এডিস মশার দীর্ঘমেয়াদি সমাধানের জন্য বাংলাদেশ সফরে আসছেন উচ্চ পর্যায়ের বিদেশি বিশেষজ্ঞ প্রতিনিধিদল। # শেখ হাসিনাকে ভারত সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। # মেঘনা নদীর ভাঙন গাফিলতি করা সেই প্রকৌশলীকে কী শাস্তি দেওয়া হয়েছে? : প্রধানমন্ত্রী# সংসদ সদস্য না হয়েও বিলাসবহুল গাড়িতে শুল্কমুক্ত সুবিধা পেলেন মুহিত# দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) দুর্নীতির বস্তাভর্তি টাকাসহ হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা গ্রেপ্তার# নায়াখালীতে সিএনজিচালিত ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে নারী-শিশুসহ আহত ১২# পচা মাছ মজুদ ও বিক্রির দায়ে স্বপ্ন এক্সপ্রেস সুপার শপকে জরিমানা# ভারতীয় দলের ওপর হামলার শঙ্কা, পিসিবিকে মেইল# ২০২৩ সালের মধ্যে দেশের ৬৬ হাজার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুপুরের খাবার পাবে প্রাথমিকের শিক্ষার্থীরা# মিন্নির জামিন শুনানি, যা বললেন হাইকোর্ট# ভারতের বহুল আলোচিত ইসলামিক বক্তা ডা. জাকির নায়েক এবার মালয়েশিয়ায় নিষেধাজ্ঞার মুখে# নেত্রীকে মুক্ত করতে ব্যর্থ বিএনপি এখন বিদেশিদের কাছে ধরনা দিচ্ছে মন্তব্য : ওবায়দুল কাদের।
আজ বৃহস্পতিবার| ২২ আগস্ট ২০১৯
সদ্যপ্রাপ্ত সংবাদ
# ঝিনাইদহে সেনা সদস্য হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন# নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি :দেশের প্রথম শ্রেণীর অনলাইন টিভি চ্যানেল"চ্যানেল ফোর নিউজ" যা খুব দ্রুতই স্যাটেলাইট টেলিভিশনে রুপান্তরিত হতে যাচ্ছে। উক্ত চ্যানেলের জন্য নিম্ন বর্ণীত বিভাগসমুহে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ১ জন করে ব্যূরো প্রধান এবং বর্ণীত বিভাগগুলোর প্রতি জেলা ও থানাসমুহে ১ জন করে জেলা ও থানা প্রতিনিধি দ্রুত ও জরুরি ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে। বিভাগসমুহ :চট্টগ্রাম, সিলেট, বরিশাল, খুলনা , রাজশাহী , রংপুর - অাগ্রহীগণকে শিক্ষাগত যোগ্যতা, জাতিয়তা NID, পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ১ কপি ছবি ও অভিজ্ঞতার প্রমানপত্রসহ পূর্ণ জীবন বৃত্

টেকসই উন্নয়নে ইসলামী অর্থায়ন বাড়ছে



টেকসই অর্থনৈতিক উন্নয়নে বড় ধরনের ভূমিকা রাখছে ইসলামী অর্থায়ন। ধীরে ধীরে বাড়ছে এই সম্পদের পরিমাণ। ২০১৬ সালে এ খাতের সম্পদ ৭ শতাংশ হারে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ দশমিক ২ ট্রিলিয়নে। আর ২০২২ সালে তা ৩ দশমিক ৮ ট্রিলিয়ন ডলারে পৌঁছাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

 

ইসলামী অর্থ উন্নয়ন তহবিল ও সূচক-২০১৭ (আইএফডিআই) শীর্ষক এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য উঠে এসেছে।

 

বুধবার মধ্যপ্রাচ্যের বাহারাইনে অনুষ্ঠিত বিশ্ব ইসলামী ব্যাংকিং সম্মেলনে আইএফডিআইর পঞ্চম সংস্করণের ওই প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়। যৌথভাবে তা প্রকাশ করে ইসলামী উন্নয়ন ব্যাংক (আইডিবি), বেসরকারি খাতের উন্নয়নের জন্য ইসলামী কর্পোরেশন (আইসিডি) এবং ব্যবসায়ী ও পেশাজীবীদের জন্য বিশ্বের শীর্ষ তথ্য সরবরাহকারী সংস্থা থমসন রয়টার্স।

 

ইসলামী অর্থায়ন শিল্পের এই প্রতিবেদনটি তৈরিতে ব্যাংকের পরিমাণগত উন্নয়ন, শিক্ষা, শাসন, কর্পোরেট সামাজিক দায়বদ্ধতা এবং সচেতনতা এই পাঁচটি বিষয়কে বিবেচনা করা হয়েছে। পাঁচটি বিষয়ে ভাল করেছে বিশ্বের এমন ১৩১টি দেশের তথ্য নিয়েই প্রতিবেদনটি তৈরি করা হয়। এতে ২০১৩ সাল থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত পাঁচ বছরের ডাটা ব্যবহার করা হয়।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ইসলামী অর্থায়ন শিল্পের নেতৃত্বে গালফভুক্ত দেশগুলোর (সৌদি আরব, কুয়েত, আরব আমিরাত, কাতার, বাহারাইন ও ওমান) থাকার কথা থাকলে আইএফডিআইর প্রতিবেদনে দেখা গেছে, এবার অর্থনৈতিক সমৃদ্ধিতে বেশি ভূমিকা রেখেছে মালয়েশিয়া, বাহারাইন ও আরব আমিরাত। তবে কমনওয়েলথভুক্ত দেশগুলো, ইউরোপ, পূর্ব ও পশ্চিম আফ্রিকার দেশগুলোও ইসলামী অর্থায়নের সূচকে ভাল করছে।

কিভাবে কঠিন অর্থনৈতিক অবস্থা মোকাবেলা করা যায়, সে বিষয়ে ইসলামী অর্থব্যবস্থা দেশগুলোকে পথ দেখিয়েছে বলেও প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। ফলে দেশগুলো তাদের ইসলামী আর্থিক শিক্ষা ও সাহিত্যের উন্নতি করার চেষ্টা করছে।

 

যদিও প্রতিবেদনে বাংলাদেশের কথা উল্লেখ করা হয়নি, তবে বাংলাদেশেও এগিয়ে রয়েছে ইসলামী অর্থনীতির ধারা। সম্প্রতি বাংলাদেশ ব্যাংকের এক প্রতিবেদনে দেখা গেছে, প্রচলিত ধারার (কনভেনশনাল) ব্যাংকগুলোর চেয়ে গ্রাহক, আমানত, শাখা বৃদ্ধি ও ঋণ বিতরণে এগিয়ে রয়েছে ইসলামী ব্যাংকগুলো। রেমিট্যান্স আহরণেও এগিয়ে এসব ব্যাংক।

 

বর্তমানে বাংলাদেশে কার্যক্রম পরিচালনা করছে আটটি পূর্ণাঙ্গ ধারার শরিয়াহভিত্তিক ইসলামী ব্যাংক। এছাড়া দেশি-বিদেশি মিলিয়ে প্রচলিত ধারার ৯টি ব্যাংক চালু করেছে ইসলামী ব্যাংকিং শাখা, আটটি ব্যাংক চালু করেছে ইসলামী ব্যাংকিং উইন্ডো। দেশের ব্যাংকিং খাতের এক-পঞ্চমাংশই এখন নিয়ন্ত্রণ করছে ইসলামী ধারার এ ব্যাংকগুলো।


1